নির্বাচকদেরকে যে পরামর্শ দিলেন রকিবুল হাসান

0
25

ক্রীড়া সংবাদদাতা: জিম্বাবুয়ের কাছে টাইগারদের টি-টোয়েন্টি সিরিজ পরাজয়ে হতাশ ভক্ত ও সমর্থকরা। সবাই এ ব্যর্থতার কারণ অনুসন্ধানে ব্যস্ত। গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপে নামী প্রশিক্ষক ও বিশেষজ্ঞ নাজমুল আবেদিন ফাহিম বলছেন, ‘বাংলাদেশ দলের ভেতরে এক অস্থিরতা কাজ করছে। বেশির ভাগ ক্রিকেটারই কেমন যেন অস্থির। আর ব্যাটারদের বেশিরভাগই নিরাপদ ক্রিকেট খেলছে। কেউই ঝুঁকি নিয়ে হাত খুলে খেলছে না।’

অন্যদিকে জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক রকিবুল হাসান দুষছেন নির্বাচকদের। রকিবুল নির্বাচকদের আরও সাহসী হওয়ার পরামর্শ দেন। জাতীয় দলের এ সাবেক অধিনায়ক বোঝানোর চেষ্টা করেন, নির্বাচকরা এখন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমকে অনেক গুরুত্ব দিচ্ছেন। যেটা জাতীয় দলের জন্য মঙ্গল-কল্যাণ বয়ে আনবে না।

রকিবুলের কথা, ‘শুধু ব্যাটার আর বোলারদের ফিয়ারলেস হওয়ার কথা বলা হচ্ছে। টিম ম্যানেজমেন্টকেও ফিয়ারলেস সিদ্ধান্তে যেতে হবে। যেন ভয় না পাই। ভয়ের কিছু নাই তো৷ আমি মনে করেছি, এটা তাই আমাকে কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হবে। তাদেরও ফিয়ারলেস হতে হবে।’

রকিবুল যোগ করেন, ‘নির্বাচকরা যদি সাংবাদিকদের নিয়ে ভয় পায়, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কাকে নিয়ে কি বলছে- একজন নির্বাচক হিসেবে যদি এগুলোকে গুরুত্ব দিতে থাকে, তাহলে কখনও কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে পারবে না।’

বুধবার বিকেলে শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে উপস্থিত সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপে জাতীয় দলের এ সাবেক অধিনায়ক আরও বলেন, ‘সিলেকশন থ্যাংকলেস জব, ভালো করলে কেউ আপনার প্রশংসা করবে না। আর করলেও সংখ্যায় খুব কম। আর সবচেয়ে বড় কথা আপনার তো তার দরকারও নেই।’

নির্বাচকদের প্রতি রকিবুলের পরামর্শ, ‘দেখবেন আপনি সঠিক প্রসেসে আছেন কি না।’ উদাহরণ দিতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘রকিবুল নাই, জায়েদ আসছে। কেন আসছে সেটা মিডিয়া এবং অডিয়েন্সের কাছে আমাকে ক্লিয়ার করতে হবে।’

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY